শিক্ষার্থীদের প্রযুক্তি ব্যবহারেও নজরদারি করতে হবে: শিক্ষামন্ত্রী

title
এক মাস আগে
চাঁদপুর প্রতিনিধি শিক্ষাঙ্গন (৩ সপ্তাহ আগে) ডিসেম্বর ২৯, ২০২১, বুধবার, ১:৪৩ অপরাহ্ন | সর্বশেষ আপডেট: ২:১৭ অপরাহ্ন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এমপি বলেছেন, যে কোন প্রযুক্তির ভালো মন্দ সব দিকই আছে। আমরা প্রযুক্তিবান্ধব ও দক্ষ হতেই হবে। যুগের চাহিদা এবং আমাদের ভবিষ্যতের চাহিদা তাই। সেজন্যই আমাদের শিশুদেরকে একদম শৈশব থেকেই প্রযুক্তির সঙ্গে পরিচিত করতেই হবে। এখনতো কোডিং, প্রোগ্রামিং শিখাতে হবে কম বয়স থেকে। তা না হলে এই চতুর্থ শিল্প বিপ্লবে তারা টিকেও থাকতে পারবে না। অথচ আমরা চাই তারা চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের সফল অংশীদার হবে। সেকারণে অবশ্যই প্রযুক্তি লাগবে। কিন্তু শিক্ষক, অভিভাবক সবারই একটা নজরদারির ব্যাপার আছে। এটিতো থাকতেই হবে। আমরা যেমন পড়াশোনার ক্ষেত্রে নজরদারি করি তেমনি তারা যখন প্রযুক্তি ব্যবহার করে পড়াশোনা করছে সেখানেও একটা নজাদারির বিষয় আছে। কাজেই আমাদের দায়িত্ব আমাদের পালন করতে হবে।আজ চাঁদপুর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে সদর উপজেলার নবনির্বাচিত ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন মন্ত্রী।আরেক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, অতিমারি এমন একটি বাস্তবাতা যেটিকে আমাদের স্বীকার করা না করার কোন সুযোগ নেই। এটি বিশ্বব্যাপী কিন্তু একটি ধাক্কা লেগেছে। সব ক্ষেত্রের মতো শিক্ষাক্ষেত্রে ধাক্কা লেগেছে। এখন সবারই চেষ্টা- আগামী শিক্ষাবর্ষে সম্ভব হলে যদি অতিমারির ছোবল সেখানেও না পড়ে তাহলে আমরা সেখানে এ ঘাটতিটুকু পুষিয়ে নেয়ার চেষ্টা করবো সেরকম করেই আমাদের পরিকল্পনা রয়েছে।এ সময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ, পুলিশ সুপার মো. মিলন মাহমুদ, জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, পৌরমেয়র মো. জিল্লুর রহমান জুয়েল, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নূরুল ইসলাম নাজিম দেওয়ান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সানজিদা শাহনাজ, ফরিদগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান এড. জাহিদুল ইসলাম রোমান প্রমুখ।