বৈদেশিক বিনিময় মুদ্রার বাজারে থামছে না অস্থিরতা

title
১৭ দিন আগে
বৈদেশিক বিনিময় মুদ্রার বাজারে অস্থিরতা  কিছুতেই থামানো যাচ্ছে না। কয়েক দফায় টাকার অবমুল্যায়নের পাশাপাশি রিজার্ভ ভেঙ্গেও পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হিমশিম খাচ্ছে সরকার। অর্থনীতিবিদরা বলছেন, সরকারের শীর্ষব্যক্তিদের দায়িত্বহীন কথাবার্তা আর কেন্দ্রীয় ব্যাংকের অদক্ষতায় বাস্তবের চেয়ে বেশি অস্থিরতা চলছে মুদ্রা বাজারে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, রপ্তানী বাণিজ্যের প্রতিবন্ধকতা দুর করাই হবে সংকট মোকাবিলার স্থায়ী সমাধান।  গেল এক মাসেরও বেশি সময় ধরে অস্থিরতা চলছে আন্তর্জাতিক মুদ্রা বাজারে। এই সময়ের মধ্যে শুধু ডলারের দাম বেড়েছে ২৫ টাকার ওপরে। রপ্তানীর চেয়ে আমদানীর পরিমান বাড়ায় ডলারের যোগান দিতে হিমশিম খাচ্ছে কেন্দ্রীয় ব্যংক। অর্থনীতিবিদরা বলছেন, আন্তর্জাতিক পর্যায় থেকে মুদ্রা বাজারের এই সংকটের সুত্রপাত। তাই শুধু দেশের বাজারে কড়াকড়ি করে সংকট নিরসন হবে না। বিশ্লেষকরা বলছেন, আন্তর্জাতিক বাজারে অস্থিরতা চললেও, দেশে তার নেতিবাচক প্রভাবটা বাস্তবতার চেয়ে বেশি। এজন্য সরকার ও বাংলাদেশ ব্যাংকের অদুরদর্শি সিদ্ধান্তই দায়ি। ব্যবসায়ীরা বলছেন, ব্যাংক আর খোলা বাজারে বড় ধরণের পার্থক্যের কারনে প্রবাসী আয় আশংকাজনকভাবে কমেছে। এই মুহুর্তে রপ্তানী আয়ই ডলারের যোগান আসার একমাত্র পথ। তাই রপ্তানী বাণিজ্যের প্রতিবন্ধকতা দুর করতে আন্তরিক হতে হবে সরকারকে। বৈদেশিক মুদ্রার আন্ত:ব্যাংক লেনদেন কয়েক মাস ধরেই অকার্যকর। তাই গ্রাহক ধরে রাখতে ছোট-খাটো অনেক ব্যাংকই খোলা বাজার থেকে ডলার কিনে চাহিদা মিটাচ্ছে। এতে সংকট ঘনিভুত হওয়ার পাশাপাশি ভেঙ্গে পড়েছে অর্থনৈতিক শৃঙ্খলা।