মহেশের ঔদ্ধত্যর জবাব হিসেবে এবার শাহরুখের ১৪ বছর আগের ভিডিও ভাইরাল

title
১১ দিন আগে
ছবি: সংগৃহীত। হলিউডে অভিনয়ের স্বপ্ন কমবেশি সব অভিনয় শিল্পীর থাকে। বলিউড থেকে সম্প্রতি বেশ কয়েকজন হলিউডে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছেন। তবে এ বলিউডের বাদশাহ হওয়ার পরও শাহরুখ খানকে কখনোই হলিউডে অভিনয়ের জন্য চেষ্টা করতেও শোনা যায়নি। এদিকে, দক্ষিণী অভিনেতা মহেশ বাবুর বলিউডে কাজ করা নিয়ে একটি মন্তব্য ঘিরে তুমুল বিতর্ক চলছে। এরই মধ্যে হলিউডে অভিনয় করা নিয়ে শাহরুখ খানের বক্তব্য সম্পর্কিত ১৪ বছর আগের একটি ভিডিও ক্লিপ ভাইরাল হয়েছে আচমকা। এখন মহেশ বাবু এবং শাহরুখ খানকে মুখোমুখি দাঁড় করিয়ে চলছে তুলনা। বিষয়টির সূত্রপাত দক্ষিণী জনপ্রিয় অভিনেতা মহেশ বাবুর একটি বিবৃতি থেকে। সেখানে বলিউডে অভিনয় করা নিয়ে মহেশ বলেন, বলিউড ক্যান নট অ্যাফোর্ড মি। অর্থাৎ, এই অভিনেতার মতে, তাকে বহন করার ক্ষমতা এখনও বলিউডের হয়ে ওঠেনি। আর এরপরই শুরু হয় ব্যাপক সমালোচনা। চরম ঔদ্ধত্যপূর্ণ এমন কথা নিয়ে অবশ্য পরে ব্যাখ্যা দিয়েছেন অভিনেতা। বলেন, কোনো ভাষাকে অপমান করা তার উদ্দেশ্য ছিল না, বরং তেলুগু ছবিতে অভিনয় করেই তিনি খুশি সেটিই বোঝানোর চেষ্টা করেছেন। তবে তার এ ব্যাখ্যা মোটেই ভালোভাবে গ্রহণ করেনি ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা। এদিকে, মহেশের এ বক্তব্য নিয়ে যখন হুলুস্থূল পড়ে গেছে চারদিকে, তখনই শাহরুখ খানের ১৪ বছর আগের একটি ভিডিও ক্লিপ ভাইরাল হয়েছে। সেখানে এক সংবাদ সম্মেলনে শাহরুখ খান হলিউডে কাজ করতে চান কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন করেন এক সাংবাদিক। উত্তরে অভিনেতা বলেন, হলিউডে আমার জন্য কোনো জায়গা নেই। শাহরুখ বলেন, আমার ইংরেজি ভালো নয়, লোকে হেসে ফেলবে। যদি আমাকে বোবা ব্যক্তির চরিত্রে অভিনয় করতে বলা হয়, তবে চেষ্টা করতে পারি। আমি বেশি বিনয়ী হওয়ার চেষ্টা করছি না। তবে আমার তো ৪২ বছর বয়স হলো, গায়ের রংও বাদামী। অভিনেতা হিসেবে আমার এমন কোনো বিশেষ খ্যাতি নেই, যা দেখে হলিউড আমায় নিতে চাইবে। কুংফু জানি না, লাতিন সালসা নাচতে পারি না, যথেষ্ট লম্বাও নই। পশ্চিমি দুনিয়ায় স্বপ্নের কারখানার মতো যে সব ছবি তৈরি হয়, তাতে আমাকে মানাবে না। SRK explains why he never entertained the idea of working in Hollywood. @iamsrk at the Berlinale 2008 press conference, Berlin, Germany pic.twitter.com/MR3DprkMCV srk1000faces Fan Account 🇩🇪 (@srk1000faces) May 11, 2022 এখানে শাহরুখের সরল ও সহজ স্বীকারোক্তির সাথে মহেশ বাবুর কথার তুলনা করছেন ভক্তরা। বলছেন, এই অহংকারই মহেশের কাল হয়ে উঠবে একদিন। এসজেড/