শিগগিরই মৌলিক অধিকার বঞ্চিত হবেন লংকানরা: রনিল বিক্রমাসিংহে

title
৫ দিন আগে
রনিল বিক্রমাসিংহে। ছবি: সংগৃহীত। শিগগিরই চরম সংকটে পড়বে ঋণ-দায়গ্রস্ত শ্রীলঙ্কা। গতকাল বুধবার (২২ জুন) পার্লামেন্ট অধিবেশনে দাঁড়িয়ে এই সতর্কবার্তা দিলেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে। আইনপ্রণেতাদের সামনে এদিন তিনি গোটা অর্থনৈতিক চিত্র ব্যাখা করেন। বলেন, রাষ্ট্রায়াত্ত্ব পেট্রোলিয়াম প্রতিষ্ঠান রয়েছে ৭০ কোটি মার্কিন ডলার ঋণের নীচে। অর্থের বিনিময়েও এখন কেউ লংকানদের জ্বালানি বিক্রি করতে রাজি নয়। তাছাড়া, বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ শূন্য হয়ে আসছে। সুতরাং, আগামী কয়েক মাসের মধ্যেই চরম অরাজকতা দেখবে শ্রীলঙ্কা। সেসময়, খাবার-ওষুধ-বিদ্যুৎ-জ্বালানি-গ্যাসের মতো জরুরি নিত্যপণ্যও কেনা যাবে না। প্রধানমন্ত্রী সতর্ক করে বলেন, সংকট সমাধানের পথ খুঁজছে শ্রীলঙ্কা। এখনও হয়নি বিপদমুক্ত। তাছাড়া, বর্তমানে ভারতের দেয়া ঋণ সহযোগিতার ওপর চলছে দেশটি। প্রতিবেশি সহায়তা বন্ধ করলেই পড়বে চরম ভোগান্তিতে। রনিল বিক্রমাসিংহে বলেন, পুরোপুরি ধসে পরা একটি অর্থনীতি পুনরুদ্ধার করা কঠিন। বিশেষভাবে, যে দেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ নেই। ভারতের কাছ থেকে ৪০০ কোটি ডলারের ঋণ নিয়েছি। কিন্তু সময়মতো পরিশোধ না করলে তারাও সহযোগিতা বন্ধ করবে। কারণ, তারা চ্যারিটি খুলে বসেনি।/এমএন